ময়মনসিংহ, ৯ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ । ২৫শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ময়মনসিংহে করোনার লক্ষণ নিয়ে সহকারী জজের স্বামীর মৃত্যু

প্রকাশিত: জুন ৮, ২০২০

ময়মনসিংহে করোনার জন্য নির্ধারিত  এসকে হাসপাতালের ড. দেবাশীষ দাস (৫২) নামে একজন গার্মেন্টস কর্মকর্তার মৃত্যু হয়েছে গতকাল। হাসপাতালে ভেন্টিলেশনে ছিলেন তিনি। তার স্ত্রী ময়মনসিংহের সহকারী জেলা ও দায়রা জজ উমা রানী দাস।

ঢাকার ফকিরা গ্রুপের গার্মেন্টস বিভাগের এইচআর বিভাগের প্রধান ছিলেন ড. দেবাশীষ দাস। তার বাড়ি সাভারের শিমুলিয়ায়। তিনি ১৯৮৩ সনে নাসিরাবাদ কলেজিয়েট স্কুল থেকে এস এস সি পাশ এবং আনন্দমোহন কলেজ থেকে এইচ এস সি প্রথম বিভাগে উত্তীর্ণ হোন। উচ্চ শিক্ষার জন্য স্কলারশীপ নিয়ে লন্ডনে পাড়ি দেন। ড.দেবাশীষ দাস রেকর্ড সংখ্যক মার্ক পেয়ে আটলান্টিক ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি, বার্মিংহাম, ইংল্যান্ড থেকে পিএইচডি ডিগ্রি লাভ করে।

ময়মনসিংহের সিভিল সার্জন ডা. এবিএম মশিউল আলম জানান, শনিবার শ্বাসকষ্ট নিয়ে তাকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরবর্তীতে রাতে তাকে এসকে হাসপাতালের করোনা ইউনিটের আইসোলেশন ওয়ার্ডে ভেন্টিলেশনে রাখা হয়। রবিবার সকাল ৭টার দিকে তিনি মারা যান। তার নমুনা সংগ্রহ করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে পাঠানো হয়েছে।

মৃতের মুখাগ্নি করার মত পরিবার কিংবা নিকটজন কাউকে পাওয়া যায়নি। পরে স্বেচ্ছাসেবকরা ময়মনসিংহের কেন্দ্রীয় শ্মশানে সৎকার কাজে সাহায্য করেন।

এই বিভাগের সর্বশেষ